• নিজস্ব প্রতিবেদক
  • ২০ নভেম্বর ২০১৯ ১৭:১৩:৪৭
  • ২০ নভেম্বর ২০১৯ ১৯:৫০:৪৩
অন্যকে জানাতে পারেন: Facebook Twitter Google+ LinkedIn Save to Facebook প্রিন্ট করুন
বিজ্ঞাপন

ঢাকা থেকে ২ রুটে যান চলাচল শুরু

ছবি : সংগৃহীত

সড়ক পরিবহনের নতুন আইন কার্যকর করার প্রতিবাদে সারাদেশে চলমান ধর্মঘট একে একে প্রত্যাহার করা শুরু হয়েছে। বুধবার সকাল ৬টা থেকে টানা ৮ ঘণ্টা জনদুর্ভোগের পর বেলা ২টায় অবরোধ তুলে নিয়ে ঢাকা-নারায়ণগঞ্জ লিংক রোড থেকে শ্রমিকরা সরে যায়। এরপর শুরু হয় ঢাকা-সিলেট ও ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে যান চলাচল।

এ ছাড়া নারায়ণগঞ্জ শহর থেকেও শুরু হয় যান চলাচল। তবে টানা ৮ ঘণ্টা অবরোধের কারণে লাখ লাখ মানুষকে চরম ভোগান্তি আর দুর্ভোগের শিকার হতে হয়।

সাইনবোর্ডে অবরোধকারীরা জানান, তারা তাদের দাবির প্রতি অবিচল। কিন্তু বুধবার মন্ত্রীদের সঙ্গে শ্রমিক নেতাদের বৈঠকের কারণে আপাতত সাময়িকভাবে অবরোধ প্রত্যাহার করে নেয়া হয়েছে। দাবি না মানলে প্রয়োজনে আবারও অবরোধ করা হবে।

বরিশাল ও পটুয়াখালী জেলায় ধর্মঘট প্রত্যাহার করা হয়েছে। বরিশাল জেলা সড়ক পরিবহন শ্রমিক ইউনিয়ন সভাপতি মো. জাহাঙ্গীর হোসেন ধর্মঘট প্রত্যাহারের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, মঙ্গলবার সকাল ১০টা থেকে বরিশালের পরিবহন শ্রমিকদের ডাকা অনির্দিষ্টকালের কর্মবিরতি বুধবার সকালে প্রত্যাহার করা হয়েছে। এরপর থেকে বাস চলাচল স্বাভাবিক রয়েছে।

জাহাঙ্গীর হোসেন বলেন, আগামীকাল বৃহস্পতিবার থেকে দুদিন (২১ ও ২২ নভেম্বর) শ্রমিক ফেডারেশনের কেন্দ্রীয় কমিটির সভা রয়েছে। সভায় যে সিদ্ধান্ত হবে, সে অনুযায়ী পরবর্তী কর্মসূচি দেওয়া হবে।

পটুয়াখালী জেলার সব রুটে বুধবার ভোর থেকে বাস ধর্মঘট শুরু হয়। বাস শ্রমিকেরা জানায়, কেন্দ্রীয়ভাবে ধর্মঘট শুরু হওয়ায় পটুয়াখালীতে বাস চলাচল বন্ধ রাখা হয়। তবে সকাল ১০টার পর তারা বাস চলাচল শুরু করেছেন।

এ ব্যাপারে পটুয়াখালীর অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (শিক্ষা ও আইসিটি) এবং বাসমালিক গ্রুপ সংগঠনের প্রশাসক মো. জিয়াউর রহমান বলেন, বাস চলাচল বন্ধ থাকার বিষয়টি তাদের জানা নেই। তবে এখন জেলার সব রুটে বাস চলাচল স্বাভাবিক রয়েছে।

সংশ্লিষ্ট বিষয়

পরিবহন ধর্মঘট

আপনার মন্তব্য

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
Page rendered in: 0.0195 seconds.