• বাংলা ডেস্ক
  • ০২ নভেম্বর ২০১৯ ১৬:৫২:৪৫
  • ০২ নভেম্বর ২০১৯ ১৬:৫২:৪৫
অন্যকে জানাতে পারেন: Facebook Twitter Google+ LinkedIn Save to Facebook প্রিন্ট করুন

খোকার পাসপোর্টের বিষয়ে ‘কিছুই করার নেই’ দূতাবাসের

ছবি : সংগৃহীত

যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্কের মেমোরিয়াল স্লোয়ান ক্যাটারিং ক্যানসার সেন্টারে নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে (আইসিইউ) মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়ছেন বিএনপি নেতা ও ঢাকার সাবেক মেয়র সাদেক হোসেন খোকা। তার শারীরিক অবস্থার উন্নতির কোন আশ্বাস দিতে পারছেন না চিকিৎসকরা।

এমতাবস্থায় খোকা তার শেষ ইচ্ছা পোষণ করেছেন তাকে যেন বাংলাদেশে নিয়ে যাওয়া হয়। কিন্তু দুই বছর আগে খোকা ও তার স্ত্রী ইসমত আরার পাসপোর্টের মেয়াদ শেষ হয়ে গেছে। তাই তারা নিউইয়র্ক বাংলাদেশ কনস্যুলেটের কনসাল জেনারেল বরাবর লেখা চিঠিতে মানবিক বিবেচনায় দ্রুততম সময়ে তাদের দুজনের জন্য আবেদনকৃত পাসপোর্ট ইস্যুর অনুরোধ জানিয়েছেন। কিন্তু দূতাবাস থেকে জানানো হয়েছে যে, পাসপোর্টের আবেদনের ব্যাপারে তাদের কিছুই করার নেই।

২ নভেম্বর, শনিবার এক ভিডিও বার্তায় সাদেক হোসেন খোকার বড় ছেলে ইসরাক হোসেন জানান, তিনি আজ তার মায়ের লেখা আবেদনপত্র নিয়ে দূতাবাসে গিয়েছিলেন। ভিডিও বার্তায় তিনি বলেন, ‘আমাকে দূতাবাস থেকে জানানো হয়েছে যে- পাসপোর্টের আবেদনের ব্যাপারে তাদের কিছুই করার নেই। কিন্তু আমরা যদি ট্রাভেল ডকুমেন্টের জন্য আবেদন করি সেক্ষেত্রে তারা সহযোগিতা করবেন।’

ইসরাক আরো জানান, ২০১৭ সালে তার বাবা-মায়ের পাসপোর্টের মেয়াদ শেষ হয়ে যাওয়ার পর বাংলাদেশ কনস্যুলেটে তাদের পাসপোর্ট নবায়নের জন্য আবেদন করেন। কিন্তু আজ পর্যন্ত সেখান থেকে কোনো সদুত্তর পাননি।

তিনি বলেন, ‘পাসপোর্ট ইস্যু করতে সমস্যা কোথায়? একজন বীর মুক্তিযোদ্ধা, যিনি রণাঙ্গনে অস্ত্র হাতে নিয়ে এই বাংলাদেশ স্বাধীন করেছেন। আমি আশা করবো যে- বিষয়টি গুরুত্ব সহকারে সরকার বিবেচনা করে দেখবে।’

সংশ্লিষ্ট বিষয়

সাদেক হোসেন খোকা বিএনপি

আপনার মন্তব্য

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
Page rendered in: 0.0249 seconds.