• ফিচার ডেস্ক
  • ০২ নভেম্বর ২০১৯ ১৩:২০:২৬
  • ০২ নভেম্বর ২০১৯ ১৩:২০:২৬
অন্যকে জানাতে পারেন: Facebook Twitter Google+ LinkedIn Save to Facebook প্রিন্ট করুন

কাজের ফাঁকে শক্তি জোগায় যেসব খাবার

ছবি : সংগৃহীত

অফিসের বা ঘরের, সকল ধরনের কাজেই শরীরের প্রচুর শক্তি ব্যয় হয়। যে কারণে কাজের ফাঁকে ফাঁকে খেতে হয় কিছু খাবার। তবে যা-তা খেয়ে শুধুশুধু টাকা খরচা করা উচিত নয়। বরঞ্চ এমন কিছু খাবার নির্বাচন করা উচিত, যা আপনার শরীরে মুহূর্তেই শক্তি ফিরিয়ে দেবে, সেই সাথে ক্লান্ত দেহের অবসন্নতাও কাটিয়ে দেবে।

একটানা কাজের ফলে যখন মস্তিষ্কে ক্লান্তি ভর করে, তখন প্রয়োজন হয় ভালো মানের পুষ্টিকর খাবার। চলুন দেখে নিই কোন কোন খাবারে মিলে অফুরান শক্তি!

* চকোলেট বা চকোলেটযুক্ত দুধ : ব্যস্ততার ফাঁকে চকোলেট জাতীয় কোনো খাবার খেতেই পারেন। এতে থাকা প্রচুর ক্যালরি শরীরে যথেষ্ট শক্তি যোগায়। ফলে অল্পক্ষণেই বেশ স্বাভাবিক বোধ করবেন। এক গ্লাস চকোলেটযুক্ত দুধে রয়েছে প্রোটিন, পানির পরিবর্তে দুধ পানে অনেক পুষ্টি পাবে শরীর। সেই সাথে এটি হাড়ের ক্যালসিয়ামও তৈরি করবে। আপনি চাইলে শরীরের হারানো শক্তি ফিরিয়ে আনতে এক গ্লাস চকোলেটযুক্ত দুধ খেতে পারেন। তবে মনে রাখবেন, চকলেটের পরিমাণ যেন খুব বেশি না হয়। অতিরিক্ত চকলেটের আবার স্বাস্থ্যঝুঁকিও আছে!

* ঠাণ্ডা দই : কাজ করতে করতে বেশ হাঁপিয়ে উঠেছেন? ক্লান্ত মস্তিষ্ককে আর কোনোভাবেই কাজে লাগাতে পারছেন না? এমতাবস্থার দাওয়াই হতে পারে এক কাপ ঠাণ্ডা দই। এটি খাওয়ার সাথে সাথেই দেখবেনই মস্তিষ্ক সচল হয়ে উঠেছে। আর ঠাণ্ডা দই আপনাকে জোগাবে প্রচুর ক্যালরি, যা মস্তিষ্ককে আরো সক্রিয় করে তুলবে।

* মিষ্টি : মিষ্টিতে প্রোটিনের পরিমাণ অনেক বেশি থাকে। আর ক্যালরিও থাকে প্রচুর। এটি আপনার ক্লান্ত-অবসন্ন দেহকে খুব দ্রুতই সতেজ করে তুলবে। মিষ্টি জাতীয় কোনো খাবার গ্রহাণের সাথেসাথেই দেহের রক্ত সঞ্চালনে গতি আসে। যে কারণে কাজের ফাঁকে মিষ্টি খাওয়ার সাথেসাথেই বেশ ফুরফুরে অনুভব করবেন। 

* উচ্চ ফাইবারযুক্ত বিস্কুট : এমন অনেক বিস্কুট রয়েছে যেগুলোতে প্রচুর পরিমাণে ফাইবার রয়েছে। ফাইবার দেহের রক্ত চলাচল স্বাভাবিক করে, পুষ্টি দেয়। আপনি কাজের ফাঁকে এই ফাইবারযুক্ত বিস্কিট খেতে পারেন। এতে কাজ করার স্পৃহাও ফিরে আসবে। আর শরীরে বাড়তি ক্যালরি যুক্ত হওয়ার ঝামেলাও পোহাতে হবে না।

* কফি :  ক্লান্তি দূর করতে কফির জুড়ি মেলা ভার। এটি কাজে মনোযোগ আনে এবং শরীরের স্ট্যামিনাও বাড়িয়ে দেয়। ক্লান্তিভাব দূর করতে চটজলদি পান করুন এক কাপ কফি। এতে আপনি নিমেষেই চাঙ্গা বোধ করবেন, কারণ কফিতে থাকা ক্যাফেইন আপনাকে উদ্যমী করে তোলে। সেই সাথে মস্তিষ্ককে দীর্ঘ সময় সজাগ রাখে। কিন্তু খুব বেশি কফি গ্রহণও উচিত হবে। এটি উল্টো ফল বয়ে আনতে পারে।

* কলা : পটাশিয়াম আর প্রচুর পরিমাণে অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট রয়েছে কলায়। সেই সাথে পাবেন ভিটামিন সি এবং ফাইবার। এই উপাদানগুলো শরীরে তাৎক্ষণিকভাবে শক্তি যোগাবে। কাজের ফাঁকে শরীরকে পুষ্টির জোগান দিতে খেয়ে নিন এক-দুটি কলা।

বাংলা/এসএ

আপনার মন্তব্য

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
Page rendered in: 0.0200 seconds.