• নিজস্ব প্রতিবেদক
  • ২০ অক্টোবর ২০১৯ ১৫:০৯:০৪
  • ২০ অক্টোবর ২০১৯ ১৮:১৫:৩৯
অন্যকে জানাতে পারেন: Facebook Twitter Google+ LinkedIn Save to Facebook প্রিন্ট করুন

মধুর ক্যান্টিনে ছাত্রদলের ওপর ছাত্রলীগের হামলা

ছবি : বাংলা

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) মধুর ক্যান্টিনে ছাত্রদলের ওপর হামলা করেছে ছাত্রলীগ। ২০ অক্টোবর, রবিবার দুপুর পৌনে ১টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। হামলায় ছাত্রদলের চারজন নেতাকর্মী আহত হয়েছেন।

আহতরা হলেন- জিয়া হলের ভিপি প্রার্থী তারেক হাসান মামুন, যুগ্ম-আহ্বায়ক শাহাজান শাওন, ছাত্রদলের সভাপতি প্রার্থী মামুন খান, বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় যুগ্ম-আহ্বায়ক ওবায়দুল্লাহ নাঈম। এছাড়া ছাত্রদলের নারী কর্মী কানেতালা ইয়া লাম লাম এবং মানসুরা আলমকেও লাঞ্চিত করা হয়। আহতদের ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, সংবাদ সম্মেলন শেষে ছাত্রদলের নেতারা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মধুর ক্যান্টিনে যান। সেখানে তাদের ওপর ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা অতর্কিত হামলা চালান।

ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় সহ-সভাপতি আমিনুল ইসলাম বুলবুলের নেতৃত্বে এ হামলা চালানো হয় বলে ছাত্রদলের অভিযোগ। হামলায় অংশ নেন ছাত্রলীগের সাবেক মুক্তিযুদ্ধ ও গবেষণা বিষয়ক উপ-সম্পাদক আল মামুন, মাস্টার দা সূর্যসেন হল শাখা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি রাইসুল ইসলাম। হামলার নেতৃত্বদানকারী আমিনুল ইসলাম বুলবুল মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চের সভাপতি বলে জানা গেছে।

হামলার বিষয়টি স্বীকার করেছেন ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় সহসভাপতি ও মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চের সভাপতি আমিনুল ইসলাম বুলবুল। তিনি বলেন, ‘যারা ৭৫ এর হাতিয়ার গর্জে উঠুক আরেকবার এই স্লোগান দেয় মধুর ক্যান্টিনে। আপনারা জানেন ৭৫ এ জাতির জনক বঙ্গবন্ধুকে হত্যার মাধ্যমে বিএনপির জন্ম হয়েছে। আমরা মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চের যারা আছি ৭৫ এর হাতিয়ার নিয়ে যারা কাজ করবে আমরা ঘোষণা দিয়েছি তাদের প্রতিহত করব।’

এর আগে দুপুর বেলা সোয়া ১১টার দিকে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাংবাদিক সমিতিতে সংবাদ সম্মেলন করেন ছাত্রদলের নেতারা। সেখানে তাদের ফেসবুক আইডি হ্যাক করে অপপ্রচার করা হচ্ছে বলে তারা অভিযোগ করেন।

এসময় উপস্থিত ছিলেন ছাত্রলীগের সাবেক মুক্তিযুদ্ধ ও গবেষণা বিষয়ক উপসম্পাদক আল মামুন, মাস্টার দা সূর্যসেন হল শাখা ছাত্রলীগের সহসভাপতি রাইসুল ইসলাম। হামলার নেতৃত্বদানকারী এই আমিনুল ইসলাম বুলবুল মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চের সভাপতি।

এর আগে সাংবাদিক সমিতিতে সাংবাদ সম্মেলনে ছাত্রদলের কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক ইকবাল হোসেন শ্যামল বলেছিলেন, ‘আমার কোনো ফেসবুক আইডি নেই। অথচ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ১৬টি আইডি চালু রয়েছে।’ এর জন্য তিনি তেজগাঁও থানায় জিডি করেছেন উল্লেখ করে তার নামের অ্যাকাউন্টের কোনো লেখার দায়ভার তিনি নিবেন না বলে জানান।

এর গতকাল ছাত্রদলের কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক ইকবাল হোসেন শ্যামলের নামে ফেসবুকের একটি অ্যাকাউন্টের বায়োতে লেখা স্ক্রিনশট ভাইরাল হয়। সেখানে লেখা ছিল ‘৭৫ এর হাতিয়ার, গর্জে উঠুক আরেকবার!’ এই স্ক্রিনশটটি ছাত্রলীগের নেতারা ভাইরাল করেন। তবে ছাত্রদলের সাধারণ সম্পাদক দাবি করেন তার কোনো ফেসবুক অ্যাকাউন্ট নেই।

সংবাদ সম্মেলন করে ছাত্রদলের নেতারা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মধুর ক্যান্টিনে যান। সেখানে তাদের ওপর ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা অতর্কিতে হামলা করে।

হামলায় যারা আহত হয়েছেন পরে তাদের রিকশায় নিয়ে মিছিল করে ছাত্রদল।

আপনার মন্তব্য

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
Page rendered in: 0.1947 seconds.