• নিজস্ব প্রতিবেদক
  • ০৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯ ১৫:২৬:২২
  • ০৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯ ১৫:২৬:২২
অন্যকে জানাতে পারেন: Facebook Twitter Google+ LinkedIn Save to Facebook প্রিন্ট করুন

পাঁচজনের পেটে ছিলো ১৩ হাজার ইয়াবা

ছবি : সংগৃহীত

কুমিল্লা প্রতিনিধি :

কুমিল্লায় পাঁচ মাদক বিক্রেতার পেট থেকে ১৩ হাজার পিস ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার করেছে পুলিশ। কক্সবাজার থেকে অভিনব কায়দায় পেটের ভিতরে করে ইয়াবা পাচারের সময় কুমিল্লার পদুয়ারবাজার বিশ্বরোড এলাকা থেকে ডিবি পুলিশ ওই ৫ মাদক ব্যবসায়ীকে আটক করে।

আটককৃত মাদক ব্যবসায়ীরা হলেন- কুষ্টিয়ার মিরপুর থানার হালসা গ্রামের আতিয়ার রহমানের ছেলে সাইফুল ইসলাম (২২), কুড়িগ্রাম জেলার রৌমারী থানার ধনারচর গ্রামের রফিকুল ইসলামের ছেলে জাহিদুল ইসলাম (২০) একই জেলার চুলিয়ারচর গ্রামের নরুজ্জামানের ছেলে মো. সুলতান (১৯), রাজিবপুর থানার চরসাজৈ গ্রামের ওসমান গনির ছেলে শরিফুল ইসলাম (২২), একই উপজেলার চররাজিবপুর গ্রামের আবু বকর ছিদ্দিকের ছেলে ফারহজান রাজ (২২)।

সোমবার দুপুরে এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে জেলা ডিবি পুলিশের এসআই পরিমল দাস জানান, রবিবার পদুয়ার বাজার বিশ্বরোডে পুলিশ চেকপোস্টের মাধ্যমে বিভিন্ন যানবাহন তল্লাশীকালে চট্টগ্রাম থেকে ঢাকা অভিমুখে একটি কালো রংয়ের এক্স নোহা মাইক্রোবাসকে সংকেত দেয় পুলিশ। তল্লাশী করার সময় মাদক ব্যবসায়ীরা রাস্তার মধ্যে রেখে গাড়ি থেকে নেমে কৌশলে পালানোর চেষ্টা করলে ডিবি পুলিশ গাড়িটি ঘেরাও করে ৫ যুবককে আটক করে। পরে তাদের জিজ্ঞাসাবাদে প্রথমে অস্বীকার করলে ডিবি পুলিশ পাশের একটি ক্লিনিকে নিয়ে এক্সরে করে পেটের মধ্যে ইয়াবার নজির পায়।

পরে সোমবার সকালে তাদের পেটের ভিতর বড় বড় ক্যাপসুলের মত ইয়াবা সম্বলিত ২৬০ টি প্যাকেট বের করা হয়। উদ্ধারকৃত প্যাকেটে ১৩ হাজার পিস ইয়াবা ছিল বলে জানায় ডিবি পুলিশ।

এ ঘটনায় কুমিল্লা ডিবি পুলিশের উপ-পরিদর্শক ইকতিয়ার উদ্দিন বাদী হয়ে কোতয়ালী মডেল থানায় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলা দায়ের করে সোমবার দুুুুপুরে আটককৃতদের জেল হাজতে প্রেরণ করেন।

সংশ্লিষ্ট বিষয়

কুমিল্লা ইয়াবা

আপনার মন্তব্য

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
Page rendered in: 0.0220 seconds.