• বিদেশ ডেস্ক
  • ২৮ আগস্ট ২০১৯ ১৩:৩৫:১১
  • ২৮ আগস্ট ২০১৯ ১৩:৩৫:১১
অন্যকে জানাতে পারেন: Facebook Twitter Google+ LinkedIn Save to Facebook প্রিন্ট করুন

আমাজানের চেয়েও ভয়াবহ আগুন আফ্রিকার বনে

ছবি : আল জাজিরা থেকে নেয়া

পুড়ছে আমাজান পুড়ছে পৃথিবীর ফেসবুক, এই কথাটি সঙ্গে আমরা কমবেশি সকলেই পরিচিত হয়ে গেছি। কারণ ল্যাটিন আমেরিকার দেশ ব্রাজিলের আমাজনের আগুনের খবরে বিশ্ববাসীর সঙ্গে উদ্বিগ্ন এ দেশের সচেতন সাধারণ মানুষ। ঠিক সেই সময়েই আফ্রিকার জঙ্গলে ‘আরও ভয়াবহ’ আগুনের খবর দিল মার্কিন মহাকাশ গবেষণা সংস্থা (নাসা)।

নাসা’র ফায়ার ইনফরমেশন ফর রিসোর্স ম্যানেজমেন্ট সিস্টেমের পক্ষ থেকে জানানো হয়, অ্যাঙ্গোলায় কমপক্ষে ৬ হাজার ৯০২টি অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটছে। একই সঙ্গে কঙ্গো জ্বলছে ৩ হাজার ৩৯৫টি আগুনে। আমাজানের ক্ষেত্রেও একই প্রতিষ্ঠান ২ হাজার ১২৭টি অগ্নিকাণ্ডের কথা বলেছিল। এমন খবর প্রকাশ করেছে সিএনএন ও আল জাজিরা।

সংস্থাটির কর্মকর্তারা জানান, গত সপ্তাহে কঙ্গো ও অ্যাঙ্গোলায় ৪৮ ঘণ্টার মধ্যে ব্রাজিলের চেয়েও ভয়াল আগুন দাপট দেখিয়েছে।

কঙ্গো গণতান্ত্রিক প্রজাতন্ত্রের জলবায়ু সংক্রান্ত কর্মী ও দূত টোসি এমপানু বলেছেন, ‘আফ্রিকা আর ব্রাজিলের আগুন একই কারণে তৈরি হয়নি। আমাজনে হয়তো খরা ও জলবায়ু পরিবর্তনের জেরে এই অবস্থা। তবে মধ্য আফ্রিকা জ্বলছে মূলত ভ্রান্ত কৃষি পদ্ধতির কারণে।’

প্রসঙ্গত, কঙ্গোয় জঙ্গল পরিষ্কার করার জন্য জুম পদ্ধতিতে চাষ হয়। আর দেশটির ৯ শতাংশ মানুষ বিদ্যুতের সুবিধা পান। সেজন্য বেশির ভাগ মানুষ কাঠ জ্বালিয়ে রান্নাবান্না ও অন্য কাজ করেন। সেখানে অরণ্য-নিধন চলছে ব্যাপক হারে। একই সাথে খনিজ ও তৈল প্রকল্পের জেরেও ক্ষতি হচ্ছে।

বাংলা/এনএস

সংশ্লিষ্ট বিষয়

আগুন বন আফ্রিকা

আপনার মন্তব্য

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
Page rendered in: 0.0220 seconds.