• বাংলা ডেস্ক
  • ২১ আগস্ট ২০১৯ ২১:৫২:২৬
  • ২২ আগস্ট ২০১৯ ১০:০১:৪০
অন্যকে জানাতে পারেন: Facebook Twitter Google+ LinkedIn Save to Facebook প্রিন্ট করুন

ভারতের ঋণে ভারত থেকে অস্ত্র কিনছে বাংলাদেশ

ছবি : সংগৃহীত

বাংলাদেশকে ঋণ দিয়েছে ভারত। সেই ঋণের টাকায় ভারত থেকেই সামরিক সরঞ্জাম কেনার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বাংলাদেশ। পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আবদুল মোমেন এ তথ্য জানিয়েছেন। তবে কি ধরণের অস্ত্র কেনা হবে তা এখনো সিদ্ধান্ত হয়নি বলে জানান তিনি।

বুধবার ডয়চে ভেলেকে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে তিনি এ তথ্য জানান।

সামরিক সরঞ্জাম কিনতে ২০১৭ সালে ভারতের সঙ্গে ৫০ কোটি ডলারের ঋণ চুক্তি করে বাংলাদেশ। কিন্তু ওই অর্থ দিয়ে এখনো কোনো সামরিক সরঞ্জাম কেনা হয়নি। ভারতের দেয়া এই ঋণ এক শতাংশ সুদে ২০ বছরে শোধ করতে হবে।

ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী এস জয়শঙ্কর গত মঙ্গলবার ঢাকায় এক বৈঠকে তাদের দেয়া ঋণের টাকায় ভারত থেকে সামরিক সরঞ্জাম কিনতে বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী আবদুল মোমেনকে অনুরোধ করেন।

এ প্রসঙ্গে আবদুল মোমেন বলেন, ‘সামরিক সরঞ্জাম কেনার জন্য তারা ৫০০ মিলিয়ন ডলার (৫০ কোটি ডলার) লাইন অব ক্রেডিট দিয়েছে। তারা বলছে, আপনারা এখন আমাদের সামরিক সরঞ্জাম কেনেন। ভারতে এখন অনেকগুলো ডিফেন্স কোম্পানি গড়ে উঠেছে।

তিনি আরো বলেন, ‘আমরা বিভিন্ন দেশ থেকে সামরিক সরঞ্জাম কিনি। অ্যামেরিকা, চায়না, ইউকে, টার্কি থেকে সামরিক সরঞ্জাম কিনি। আমরা যেহেতু আগে কোনোদিন ভারত থেকে সামরিক সরঞ্জাম কিনিনি তাই এখন আমাদের লোকরা দেখছে ভারত থেকে কী ধরনের সামরিক সরঞ্জাম কেনা যায়।'

মন্ত্রী বলেন, ‘অফিসিয়াল কমফার্মেশন নেই, আমি শুনেছি আমরা ভারত থেকে আমরা একটা সাবমেরিন কিনতে চেয়েছিলাম৷ কিন্তু তারা সাবমেরিন দেবে না। সম্প্রতি আমরা চীন থেকে মাল্টিপল রেঞ্জের কিছু অটোমেটিক ফায়ার আর্মস কিনেছি। তারা (ভারত) বলছে এগুলো তাদের কাছ থেকে কিনতে। আমরা বলেছি আমরা কিনতে রাজি আছি এবং তোমাদের কাছ থেকে আমরা সামরিক সরঞ্জাম কিনব। আমাদের আর্মড ফোর্সেস ডিভিশনকে জানাব, তারা জানাবে কী ধরণের সরঞ্জাম আমরা কিনতে পারি, তারাই সেই লিস্ট তৈরি করবে।’

সংশ্লিষ্ট বিষয়

ভারত বাংলাদেশ

আপনার মন্তব্য

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
Page rendered in: 0.0239 seconds.