• ০৬ আগস্ট ২০১৯ ১৬:৫৮:১৩
  • ০৬ আগস্ট ২০১৯ ১৬:৫৯:৩২
অন্যকে জানাতে পারেন: Facebook Twitter Google+ LinkedIn Save to Facebook প্রিন্ট করুন
বিজ্ঞাপন

ঘুষের মামলা খেলেন চট্টগ্রাম কাস্টমসে ২৪ জন

ফাইল ছবি

চট্টগ্রাম কাস্টমসের ২৪ কর্মকর্তা, কর্মচারী ও আমদানিকারকের বিরুদ্ধে ১৮টি মামলা করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। ঘুষ লেনদেন ও অর্থ আত্মসাতের অভিযোগে মঙ্গলবার (৬ আগস্ট) দুদকের প্রধান কার্যালয় থেকে মামলাগুলো করা হয়েছে।

মামলার আসামিরা হলেন- অবসরপ্রাপ্ত রাজস্ব কর্মকর্তা সৈয়দ হুমায়ুন আখতার, মো. সফিউল আলম, শফিউল আলম, হুমায়ুর কবির, মো. নিজামুল হক,  মো. আইনুল হক, মো. সাহিদুর রহমান, মো. সাইফুল ইসলাম, ফাহাদ আবেদীন সোহান, জ্যোতির্ময় সাহা, মো. আবুল হাসনাত সোহাগ, মো. মমিনুল ইসলাম, মির্জা মো. আহসানুজ্জামান, এমএ আলীম, মো. মুসা ভূঁইয়া, মইনুল আলম চৌধুরী, হাজী ফোরকান আহমেদ, মো. সাইফুর রহমান, মো. নুরুল আলম, মো. জহিরুল ইসলাম,  মো. রুবেল আহমেদ, মেসার্স গ্যা্ট্রেড ইন্টারন্যাশনালের প্রোপাইটর মো. কাসিফ ফোরকান ও এমআর কর্পোরেশনের স্বত্বাধিকারী মো. হারুন শাহ।

দুদকের সমন্বিত চট্টগ্রাম জেলা কার্যালয়-২ এর উপ-সহকারী পরিচালক রিয়াজ উদ্দিন তথ্যের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

এর আগেও ১৫ কাস্টমস কর্মকর্তা-কর্মচারীর বিরুদ্ধে মামলা করা হয়েছিল। আদালতের মাধ্যমে তাদের নয়জনকে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

সর্বশেষ কাস্টমসের স্টাফ শাখায় দায়িত্বরত রাজস্ব কর্মকর্তা (প্রশাসন) নাজিম উদ্দিনের অফিসকক্ষের আলমিরায় তল্লাশি করে ঘুষের নগদ ছয় লাখ টাকা পায় দুদক।

একই সময় রাজস্ব কর্মকর্তা আমজাদ হাজারীর স্ত্রীর নামে তিন কোটি টাকা অবৈধ সম্পদ থাকায় স্ত্রীসহ তার বিরুদ্ধে দুর্নীতির মামলা করে দুদক।

বাংলা/এসএস

আপনার মন্তব্য

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
Page rendered in: 0.0225 seconds.