• বিদেশ ডেস্ক
  • ২০ জুন ২০১৯ ১৫:২৭:৫৩
  • ২০ জুন ২০১৯ ১৫:২৭:৫৩
অন্যকে জানাতে পারেন: Facebook Twitter Google+ LinkedIn Save to Facebook প্রিন্ট করুন

জনসাধারণের আগ্নেয়াস্ত্র ফেরত নিচ্ছে নিউজিল্যান্ড সরকার

ছবি : সংগৃহীত

নিউজিল্যান্ডের ক্রাইস্টচার্চে মসজিদে হামলায় মুসল্লিসহ ৫১ জনের প্রাণহানির ঘটনায় গত এপ্রিলেই দেশটিতে আধা-স্বয়ংক্রিয় আগ্নেয়াস্ত্র বিক্রি নিষিদ্ধ করা হয়েছে।

দেশটির প্রধানমন্ত্রী জেসিন্ডা আরদান পার্লামেন্টে বলেছেন, শুধু অস্ত্র বিক্রি নিষিদ্ধ করলেই হবে না, যেসব অস্ত্র ইতোমধ্যে বেসামরিক লোকজনের হাতে চলে গেছে সেসব অস্ত্রও তাদের কাছ থেকে প্রত্যাহার করতে হবে। খবর বিবিসির।

এ জন্য নিউজিল্যান্ড সরকার অস্ত্র ফেরত নেয়ার একটি প্রকল্প চালু করেছে। বৃহস্পতিবার থেকে সাধারণ ক্রেতাদের কাছ থেকে বিক্রি করা অস্ত্র ফেরত নেয়ার ওই প্রকল্প চালু করা হয়।

এ প্রকল্পে প্রাথমিকভাবে নিউজিল্যান্ড সরকারের ব্যয় করছে ২ কোটি ৮০ লাখ নিউজিল্যান্ড ডলারের (এক কোটি ৩৬ কোটি ডলার)।যে টাকা দিয়ে অস্ত্রগুলো কেনা হয়, অস্ত্র ফেরত দিয়ে এ প্রকল্পে এর ৯৫ শতাংশ মূল্য ক্রেতারা ফিরত পাবেন।

অস্ট্রেলীয় বর্ণবাদী সন্ত্রাসী ও শ্বেতাঙ্গ জঙ্গি ব্রেনটন টেরেন্ট নিউজিল্যান্ডের ক্রাইস্টচার্চে দুই মসজিদে নির্বিচারে গুলি করে ৫১ জনকে হত্যা, ৪০ জনকে গুলি করে গুরুতর আহত করেন।

গত ১৫ মার্চ জুমার নামাজ চলার সময় চালানো ওই হামলায় নিহতদের মধ্যে পাঁচ বাংলাদেশিও রয়েছেন।

সংশ্লিষ্ট বিষয়

নিউজিল্যান্ড অস্ত্র

আপনার মন্তব্য

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
Page rendered in: 0.0270 seconds.