• নিজস্ব প্রতিবেদক
  • ০৭ জুন ২০১৯ ১৯:৪৩:৩৪
  • ০৭ জুন ২০১৯ ২১:৪৬:২৩
অন্যকে জানাতে পারেন: Facebook Twitter Google+ LinkedIn Save to Facebook প্রিন্ট করুন
বিজ্ঞাপন

চুরির অভিযোগে প্রতিবন্ধীকে বেঁধে নির্যাতন

ছবি : সংগৃহীত

কিশোরগঞ্জের তাড়াইল উপজেলায় ‘চোর’ আখ্যা দিয়ে মোশারফ (১৯) নামে এক মানসিক প্রতিবন্ধী তরুণকে বেঁধে নির্যাতন করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার (০৬ জুন) সকালে তাড়াইল উপজেলার দড়িজাহাঙ্গীরপুর গ্রামে এ নির্যাতনের ঘটনা ঘটে।

প্রতিবন্ধী তরুণকে বেঁধে মধ্যযুগীয় নির্যাতনের ঘটনাটির দৃশ্য মুঠোফোনে ধারণ করে এর ভিডিও ফেসবুকে পোস্ট করা হলে, এটি ভাইরাল হয়। ফেসবুকে দেয়া ভিডিও’র সূত্র ধরে দুপুরে তাড়াইল থানার ওসি মো. মুজিবুর রহমান এর নেতৃত্বে পুলিশ অভিযান চালিয়ে অভিযুক্ত নির্যাতনকারী সাজ্জাদ হাসান হিটলারকে (৩০) আটক করে।

আটক হওয়া নির্যাতনকারী সাজ্জাদ হাসান হিটলার তাড়াইল উপজেলার দড়িজাহাঙ্গীরপুর গ্রামের মৃত নূর হোসেনের ছেলে।

ভাইরাল হওয়া ভিডিওটিতে দেখা যায়, মোশারফ নামের ওই প্রতিবন্ধী তরুণের রশি দিয়ে বাঁধা দুই পা এক ব্যক্তি ধরে রেখেছে। সাজ্জাদ হাসান হিটলার ছেলেটিকে লাঠি দিয়ে বেধড়ক পেটাচ্ছে। এ সময় চারপাশে লোকজন গোল করে এই মারধর দেখছিলেন। বেধড়ক এই মারধরের সময় মোশারফ আর্তচিৎকার করে তার বাবা-মাকে ডাকছিলো।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্র জানায়, মোশারফ নামের ওই প্রতিবন্ধী তরুণের বাড়ি উপজেলার রাম শামুকজানি। তার বাবার নাম কেন্তু মিয়া। ওই তরুণ পাশের গ্রাম দড়িজাহাঙ্গীরপুরের অবসরপ্রাপ্ত কাস্টম অফিসার মোখলেসুর রহমান খান শাহানের বাড়ির ছাদের উপর ওঠে নারকেল গাছে ওঠার চেষ্টা করছিল। এতে বাউন্ডারি ক্ষতিগ্রস্ত হয়। এ সময় বাড়ির লোকজন মিলে মোশারফকে আটক করে।

এর জের ধরে বাড়ির মালিক মোখলেসুর রহমান খান শাহানের নির্দেশে বাড়ির পাশের গুলবাগ জামে মসজিদের সামনে খোলা মাঠে চোর আখ্যা ছেলেটিকে বেঁধে নির্মমভাবে পেটানো হয়।

তাড়াইল থানার ওসি মো. মুজিবুর রহমান জানান, বিষয়টি তার নজরে আসার পর পরই অভিযুক্তকে ধরতে তারা অভিযান পরিচালনা করেন। দুপুরেই অভিযুক্ত সাজ্জাদ হাসান হিটলারকে আটক করে তারা থানায় নিয়ে আসেন।

এ ঘটনায় নির্যাতনের শিকার মোশারফের বড় ভাই সাদ্দাম হোসেন বাদী হয়ে থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে বলেও ওসি জানান।

বিজ্ঞাপন

আপনার মন্তব্য

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
Page rendered in: 0.0197 seconds.