• ফিচার ডেস্ক
  • ০৫ জুন ২০১৯ ১৮:০৬:১৬
  • ০৫ জুন ২০১৯ ১৮:০৬:১৬
অন্যকে জানাতে পারেন: Facebook Twitter Google+ LinkedIn Save to Facebook প্রিন্ট করুন
বিজ্ঞাপন

ব্রণ নিয়ে যত ভুল ধারণা, বিশ্বাসেই বিপদ

ছবি : সংগৃহীত

ব্রণ হলো মানব ত্বকের একটি দীর্ঘমেয়াদী রোগবিশেষ যা বিশেষত লালচে ত্বক, প্যাপ্যুল, নডিউল, পিম্পল, তৈলাক্ত ত্বক, ক্ষতচিহ্ন বা কাটা দাগ ইত্যাদি দেখে চিহ্নিত করা যায়। ভীতি, দুশ্চিন্তা ও বিষণ্ণতা উদ্রেকের পাশাপাশি, এটির প্রধান পার্শ্ব প্রতিক্রিয়া হচ্ছে আত্মবিশ্বাস কমে যাওয়া।

বয়ঃসন্ধিকালে লিঙ্গ নির্বিশেষে টেস্টোস্টেরন এর মত অ্যান্ড্রোজেন বৃদ্ধির ফলে ব্রণ হতে পারে। ত্বকের উপর তৈলাক্ত গ্রন্থির মাত্রার উপর ব্রণ হওয়া নির্ভর করে।

তবে এই ব্রণ নিয়ে কিছু ভুল ধারনা রয়েছে। যা আমাদেরকে আরো বেশি উদ্বিগ্ন করে তোলে।

দেখে নেওয়া যাক ব্রণ নিয়ে কী কী ভুল ধারণা রয়েছে—

১। অনেকে বলেন বেশি ভাজাভুজি খাবার খেলে ব্রণ হয়। আদৌ এর সঙ্গে ব্রণ-র সম্পর্ক নেই।

২। অনেকের ধারণা, তৈলাক্ত এবং গুরুপাক খাবার খেলে ব্রণ হয়। এটাও ঠিক নয়।

৩। শাক-সবজি না খেলে ব্রণ হবে এমন কোনো কারণ নেই। তবে এমনিতেই ত্বক ভাল রাখার জন্য ভিটামিন সমৃদ্ধ খাবার দরকার।

৪। অনেকে বলেন, বেশি করে জল না খেলে ব্রণ হয়। এটাও ভুল ধারণা।

৫। কোষ্ঠকাঠিন্যের জন্য ব্রণ হয়- এই ধারণাটিও সঠিক নয়। পেটের সঙ্গে অন্য অনেক কিছুর সম্পর্ক থাকলেও ব্রণ-র নেই।

৬। ব্রণ হলে ফেসওয়াশ দিয়ে মুখ ধোওয়া ঠিক নয় বলা হয়। এটাও সম্পূর্ণ ঠিক নয়। তবে খেয়াল রাখা উচিত ফেসওয়াশটি কেমন মানের।

৭। অনেকে ব্রণ হলে সেখানে টুথপেস্ট লাগানোর পরামর্শ দেন। এটা একেবারেই ঠিক ধারণা নয়।

৮। ব্রণ ফাটিয়ে দেওয়ার পরামর্শও শোনা উচিত নয়। এটা মারাত্মক বিপদ ডাকতে পারে।

তাই ব্রণ নিয়ে ভুল পরামর্শে কান না দিয়ে প্রয়োজনে চিকিৎসকের পরামর্শ নিন।

বিজ্ঞাপন

সংশ্লিষ্ট বিষয়

ব্রণ

আপনার মন্তব্য

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
Page rendered in: 0.0181 seconds.