• বিদেশ ডেস্ক
  • ০২ জুন ২০১৯ ২২:৫২:১৩
  • ০২ জুন ২০১৯ ২২:৫২:১৩
অন্যকে জানাতে পারেন: Facebook Twitter Google+ LinkedIn Save to Facebook প্রিন্ট করুন

শর্ত ছাড়াই ইরানের সঙ্গে আলোচনায় প্রস্তুত যুক্তরাষ্ট্র

ছবি : সংগৃহীত

কোনো পূর্বশর্ত ছাড়াই ইরানের সঙ্গে আলোচনার জন্য যুক্তরাষ্ট্র প্রস্তুত রয়েছে বলে জানিয়েছেন মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেও। তবে ইরানের পরমাণু কর্মসূচিকে কেন্দ্র করে যুক্তরাষ্ট্র দেশটির বিরুদ্ধে যে অবরোধ আরোপ করেছে তা প্রত্যাহার করার কোনো ইঙ্গিত দেননি তিনি।

রবিবার সুইজারল্যান্ডে এক যৌথ সংবাদ সম্মেলনে সুইস পররাষ্ট্রমন্ত্রী ইগনাজিও ক্যাসিস এর পাশে দাঁড়িয়ে মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘কোনো পূর্বশর্ত ছাড়াই আমরা আলোচনার জন্য প্রস্তুত আছি। আমরা তাদের সঙ্গে বসার জন্য প্রস্তুত হয়ে আছি।’

ট্রাম্প প্রশাসনের গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তিদের মধ্যে যারা ইরানের ব্যাপারে কট্টর অবস্থানে আছেন তাদের মধ্যে পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেও অন্যতম। বলা হয়ে থাকে ইরানের ব্যাপারটি তিনিই দেখাশোনা করে থাকেন। কিন্তু বেশ কয়েকদিন ধরেই ইরানের ব্যাপারে কট্টর অবস্থান থেকে কিছুটা নরম সুরে কথা বলতে শুরু করেছে যুক্তরাষ্ট্র।

অবশ্য ইরান যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে আলোচনার কোনো সম্ভাবনাই দেখছে না। মঙ্গলবার ইরানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র এই তথ্য জানিয়েছেন। তার একদিন আগেই মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প জাপানে সফর করার সময় বলেছিলেন, পারমাণবিক কর্মসূচি নিয়ে তেহরানের সঙ্গে একটি চুক্তি করা সম্ভব হতে পারে।

এদিকে ইরানের প্রেসিডেন্ট হাসান রুহানি জোর দিয়ে বলেন, ‘যুক্তরাষ্ট্র এবং ইরানের মধ্যে আলোচনা কেবল সম্মানের ভিত্তিতেই সম্ভব হতে পারে।’

ইরানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী জাভাদ জারিফ আমেরিকান নেটওয়ার্ক এবিসি নিউজে দেয়া সাক্ষাৎকারে জানান, শিগগিরই ইরান যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে আলোচনায় বসতে রাজি হবে এরকম কোন কিছু ঘটতে না পারার সম্ভাবনাই বেশি। রবিবার অনুষ্ঠানটি সম্প্রচারিত হয়।

এদিকে ট্রাম্প জানান, আলোচনার টেবিলে আসার জন্য ইরানের উপর চাপ সৃষ্টি করছেন তিনি।

উল্লেখ্য, ট্রাম্প নির্বাচিত হয়ে আসার পর থেকেই যুক্তরাষ্ট্র এবং ইরানের সম্পর্কের মধ্যে উত্তেজনা বাড়তে থাকে। বিশেষ করে গত বছর ট্রাম্প প্রশাসন ইরানের সঙ্গে করা পারমাণবিক চুক্তি থেকে নিজেদের প্রত্যাহার করে নিলে এই উত্তেজনা তুঙ্গে উঠে যায়। এরপর মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ইরানের উপর একের পর এক অবরোধ আরোপ করতে থাকে। যা এখনো চলছে।

বাংলা/এফকে

সংশ্লিষ্ট বিষয়

ইরান যুক্তরাষ্ট্র

আপনার মন্তব্য

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
Page rendered in: 0.0243 seconds.