• ফিচার ডেস্ক
  • ২৮ এপ্রিল ২০১৯ ১২:৩৬:১০
  • ২৮ এপ্রিল ২০১৯ ১২:৩৬:১০
অন্যকে জানাতে পারেন: Facebook Twitter Google+ LinkedIn Save to Facebook প্রিন্ট করুন
বিজ্ঞাপন

বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইটে যুক্ত হচ্ছে এটিএম বুথ

ছবি : সংগৃহীত

দেশি টেলিভিশন চ্যানেলকে স্যাটেলাইট ইন্টারনেটের আওতায় আনার পাশাপাশি নিরাপদ ব্যাংকিং সেবা পৌঁছে দিতে বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-১ (বিএস-১) অটোমেটেডে টেলার মেশিনের (এটিএম) সঙ্গে যুক্ত হচ্ছে।

একইসাথে বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইটের এক বছর পূর্তি বা প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর প্রাক্কালে প্রত্যন্ত অঞ্চলে ইন্টারনেট সেবা পৌঁছে দেয়ার উদ্যোগ নেয়া হয়েছে।

এ প্রসঙ্গে বাংলাদেশ কমিউনিকেশন স্যাটেলাইট কোম্পানি লিমিটেডের (বিসিএসসিএল) চেয়ারম্যান ড. শাহজাহান মাহমুদ বলেন, আগামী ১২ মে বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইটের-১ এর বর্ষপূর্তি। প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর প্রাক্কালে ব্যাংকের এটিএম বুথ আর অনলাইনে আর্থিক লেনদেন স্যাটেলাইট ইন্টারনেটের সঙ্গে যুক্ত করা হচ্ছে। পাশাপাশি দেশি টেলিভিশন চ্যানেলকে এর সঙ্গে যুক্ত হবে এবং ইন্টারনেট সেবা বঞ্চিত প্রত্যন্ত অঞ্চলে পৌঁছে দেয়া হবে স্যাটেলাইট সেবা।

অধিকাংশ এটিএম বুথ ইন্টারনেট সেবার আওতায় আনার পরিকল্পনা তুলে ধরে তিনি বলেন, ‘প্রাথমিক পর্যায়ে বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইটের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর দিনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উপস্থিতিতে ডাচবাংলা ব্যাংকের এটিএম বুথে স্যাটেলাইট ইন্টারনেট সেবার পরীক্ষামূলক ব্যবহার করা হবে। স্যাটেলাইট ইন্টারনেট সেবা ব্রডব্যান্ড ইন্টারনেটের তুলনায় অনেক বেশি নিরাপদ।’

স্যাটেলাইট ইন্টারনেট ব্যবস্থা থেকে কোনো তথ্য ফাঁস হওয়ার সুযোগ নেই বলে তিনি দাবি করেন।

তিনি জানান, হাতিয়া দ্বীপ এবং ইন্টারনেট বঞ্চিত দেশের অন্যান্য অঞ্চলে থ্রিজি এবং ব্রডব্যান্ড ইন্টারনেট সেবা পৌঁছে দেওয়ার উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। যার সূচনাও এদিনে হবে।

প্রসঙ্গত, দেশে বর্তমানে প্রায় ৪০টি টেলিভিশন চ্যানেল এবং বাণিজ্যিক ব্যাংকের সাত হাজার এটিএম বুথ রয়েছে।

বিএস-১ ব্যবহার প্রসঙ্গে ডাচবাংলা ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক আবুল কাশেম মোহাম্মদ শিরীন বলেন,‘দুর্গম এবং ইন্টারনেট সংযোগবিহীন এলাকার গ্রাহকদের আমরা স্যাটেলাইট থেকে পাওয়া ‘ডেডিকেটেড’ ব্যান্ডউইথ দিয়ে ইন্টারনেট সেবা পৌঁছে দিতে চাই।’

ডাচবাংলা ব্যাংকের ৪৮০০ এটিএম বুথ আছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, এই স্যাটেলাইট ব্যান্ডউইথ ব্যবহার করে আমরা আরো অনেক মানুষের কাছে পৌঁছাতে পারব বলে আশা করি।

প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর অনুষ্ঠানে বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইটের বহুমুখী ব্যবহারের ওপর কয়েকটি প্রদর্শনী করা হবে। এর মধ্যে রয়েছে অনলাইন ব্যাংকিং, অনলাইনে আর্থিক লেনদেন, সব টিভি চ্যানেলকে স্যাটেলাইটের আওতায় আনা ইত্যাদি। অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকার কথা রয়েছে।

স্যাটেলাইট ব্যান্ডউইথ ব্যবহার করে বিসিএসসিএলের ব্যবসা সম্প্রসারণের পরিকল্পনার কথা উল্লেখ করে শাহজাহান মাহমুদ জানান, কেবল দেশের ভেতরে নয়, দেশের বাইরেও বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইটের বাণিজ্যিক কার্যক্রম পরিচালনার সুযোগ সৃষ্টি হয়েছে। এরই মধ্যে ফিলিপাইন ও নেপাল এই স্যাটেলাইট থেকে ব্যান্ডউইথ কেনার ব্যাপারে আগ্রহ দেখিয়েছে। আলাপ-আলোচনা চলছে। শিগগিরিই বিষয়টি চূড়ান্ত হবে।

এখন পর্যন্ত ১৯টি টিভি চ্যানেল এ ব্যাপারে চূড়ান্ত প্রস্তুতি গ্রহণ করেছে জানিয়ে তিনি বলেন, বাকি টিভি চ্যানেলগুলো আগামী ১২ মে থেকে বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইটের মাধ্যমে সম্প্রচার কার্যক্রম শুরু করবে। তিনি বলেন, টিভি চ্যানেলগুলো আগে যে দামে কিনত এখন সেই দামই দেবে। প্রতি মেগাহার্ডজ দুই হাজার ডলার করেই পরিশোধ করবে তারা। প্রতিটি টিভি চ্যানেলের চার থেকে ছয় মেগাহার্ডজ লাগে। এছাড়া বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইটের মাধ্যমে দেশের দুর্গম অঞ্চলে ইন্টারনেট সংযোগ ব্যবস্থা চালু সহজ হবে। ইতিমধ্যে সে উদ্যোগও নেওয়া হয়েছে।

প্রসঙ্গত, ২০১৮ সালের ১১ মে রাত ২টা ১৪ মিনিটে বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-১ যুক্তরাষ্ট্রের কেনেডি স্পেস সেন্টার থেকে উৎক্ষেপণ করে মহাকাশ প্রযুক্তি সেবাদাতা প্রতিষ্ঠান স্পেস এক্স। -বাসস

বিজ্ঞাপন

আপনার মন্তব্য

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
Page rendered in: 0.0225 seconds.